রবিবার, ২৫ ফেব্রুয়ারী ২০২৪, ১২:৩৪ পূর্বাহ্ন

বিজ্ঞপ্তি:
প্রকাশক ও সম্পাদক : মোঃ বিল্লাল হোসেন।  আইনবিষয়ক সম্পাদক: অ্যাডভোকেট রাসেল । যোগাযোগ : ০৩১-৭২৮০৮৫, ০১৮১১৫৮৮০৮০ মেইল: bdprotidinkhabor@gmail.com জহুর উল্লাহ বিল্ডিং (৩য় তলা), পানওয়ালা পাড়া, চৌমুহনী, উত্তর আগ্রাবাদ ১২৭৭, চট্টগ্রাম।
সংবাদ শিরোনাম:
বিপিএম ও পিপিএম পদক পাচ্ছেন মৌলভীবাজার জেলার তিন পুলিশ অফিসার কমলগঞ্জে দিনব্যাপি পিঠা উৎসব অনুষ্ঠিত মহাসড়কে আইন-শৃঙ্খলা পরিস্থিতি জোরদার করতে হবে: হাইওয়ে পুলিশ প্রধান লোহাগাড়ায় আইডিয়াল স্কুলে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে আলোচনা, বার্ষিক পুরুষ্কার বিতরণী ও সেরা মা অ্যাওয়ার্ড প্রদান সংগঠন বিরোধী কার্ষকলাপের অভিযোগে যশোর জেলা  যুবলীগ নেতা মিলনকে অব্যাহতি ভাষা শহিদদের প্রতি মৌলভীবাজার পুনাকের শ্রদ্ধাঞ্জলি মৌলভীবাজারে আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে শহীদদের শ্রদ্ধা জানাতে গিয়ে পুলিশ আওয়ামী লীগ হট্রগোল শ্রীমঙ্গলে মাদ্রাসা শিক্ষার্থীদের মাঝে ক্রীড়া প্রতিযোগিতার পুরস্কার বিতরণ গভীর শ্রদ্ধার সাথে ভাষা শহীদদের স্মরণ শ্রীমঙ্গল প্রেসক্লাবের বিনয়বাঁশী শিল্পীগোষ্ঠী’র উদ্যোগে মাতৃভাষা দিবস পালিত

ছুরিকাঘাতে নিহত

নরসিংদীর পলাশে বোনকে মারধর করার প্রতিবাদ করায় ভাগিনার ছুরিকাঘাতে মামা আতাউর রহমান (৩৮) মারা যায়। ভাগিনার ছুরির আঘাতে গুরুতর আহত হওয়ার সাতদিন পর চিকিৎসাধীন অবস্থায় ঢাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালে রোববার রাতে আতাউর রহমান নিহত হয়েছে। সোমবার (২৫শে এপ্রিল) নিহত আতাউর রহমান লাশ নিজ গ্রামে দাফন করা হয়েছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, গত ১৭ এপ্রিল বিকালে নরসিংদী জেলা পলাশ উপজেলার চরসিন্দুর ইউনিয়নের আলীনগর গ্রামের কবির শেখের ছেলে নিয়ন শেখ (২৪) নামের এক যুবক পারিবারিক কলহের জেরে তার মা সেফালি বেগমকে মারধর করে। খবর পেয়ে একই গ্রামের মৃত গিয়াস উদ্দিনের ছেলে ও সেফালি বেগমের আপন ছোট ভাই আতাউর রহমান তার বোন সেফালি বেগমকে মারধর করার প্রতিবাদ করে। এসময় নিয়ন শেখ আরও ক্ষিপ্ত হয়ে তার মামা আতাউর রহমানকে ছুরি দিয়ে আঘাত করে সাথে সাথে পালিয়ে যায়।
পরে স্থানীয়রা ছুরিকাঘাতে জখম আতাউর রহমানকে উদ্ধার করে নরসিংদী সদর হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখান প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে তার শারীরিক অবস্থা সংকটাপন্ন হলে তাকে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি হয়। সেখানে কয়েকদিন চিকিৎসার পর ঢাকার একটি বেসরকারি হাসপাতালে আতাউর রহমানকে চিকিৎসা করানো হয়। ওই হাসপাতালেই চিকিৎসাধীন অবস্থায় রোববার রাতে আতাউর রহমান মারা যায়।

এ ব্যাপারে পলাশ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোহাম্মদ ইলিয়াছ জানান, ভাগিনার ছুরির আঘাতে মামা আতাউর রহমান জখম হওয়ার ঘটনাটি আগে কেউ থানায় অভিযোগ দায়ের করেনি। রোববার রাত ১২টার দিকে নিহত আতাউর রহমানের মরদেহ বাড়িতে নিয়ে আসলে পুলিশ গিয়ে লাশ উদ্ধার করে। সোমবার সকালে মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য নরসিংদীর সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

তবে এ ঘটনায় নিহতের পরিবার থেকে এখনো কেউ থানায় কোনো লিখিত অভিযোগ দায়ের করা হয়নি। পাশাপাশি ঘাতক নিয়ন শেখও পলাতক রয়েছে। তাকে গ্রেফতারের অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

আপনার সামাজিক মিডিয়া এই পোস্ট শেয়ার করুন

সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত © ওয়েবসাইট এর কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার সম্পুর্ণ বেআইনি
Design & Development BY ThemeNeed.Com